করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ১,৬০৪ ◈ আজকে মৃত্যু : ১৯ ◈ মোট সুস্থ্য : ৩২২,৭০৩
প্রচ্ছদ / বিনোদন / বিস্তারিত

অপুর মন খারাপ, শাকিবের শুভেচ্ছা

২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২:২৭:৩৫

ঢালিউড তারকা শাকিব খান ও অপু বিশ্বাসের একমাত্র ছেলে আব্রাম খান জয়ের চতুর্থ জন্মদিন আজ। আব্রাম ২০১৬ সালে ২৭ সেপ্টেম্বর ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কলকাতার একটি হাসপাতালে জন্মগ্রহন করে। শাকিব ও অপু এখন আর এক সঙ্গে নেই। তবে ছেলের জন্মদিনকে ঘিরে তাঁদের কণ্ঠে শোনা গেল এক সুর। দুজনেই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছেলে আব্রাম খান জয়ের প্রতি প্রকাশ করলেন তাঁদের ভালোবাসার কথা।

তবে বাবা–মায়ের অগাধ ভালোবাসা পেয়ে দিন শুরু হলেও আব্রামের এবারের জন্মদিনটি অন্য বছরগুলোর তুলনায় আলাদা কাটছে। মা অপু বিশ্বাস ছেলের জন্মদিন প্রতিবছর বেশ আয়োজন করে পালন করে থাকেন। কিন্তু সেই আয়োজন এবার হচ্ছে না। কিছুদিন আগে এই অভিনেত্রী তাঁর মাকে হারিয়েছেন। সেই শোক এখনো তিনি কাটিয়ে উঠতে পারেননি।

ছেলে আব্রামের সঙ্গে অপুফেসবুক থেকে
করোনায় মাকে হারিয়ে এখনো শোকে স্তব্ধ অপু বিশ্বাস ও তাঁর পরিবার। এর মধ্যেই চলে এল ছেলে আব্রামের জন্মদিন। ছেলেকে উদ্দেশ করে এই নায়িকা তাঁর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের পাতায় আজ সকালে লেখেন, ‘বাবা, এবার তোমার জন্মদিনের কোনো আয়োজনই আমি করতে পারলাম না।’ এই সময় তিনি তাঁর মায়ের চলে যাওয়ার প্রসঙ্গে লেখেন, ‘তোমার দিদা তোমার পাশে নেই। আমরা আর কখনো তোমার দিদার দেখা পাব না।’ এই অভিনেত্রীর মা শেফালী বিশ্বাস ১৮ সেপ্টেম্বর রাত দেড়টার দিকে রাজধানীর ল্যাবএইড হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন।

ছেলের জন্মদিন ধুমধাম করে পালন করতে না পারলেও ছেলেকে উদ্দেশ করে অপু আরও লেখেন, ‘তোমার মা হিসেবে আমি তোমাকে অনেক অনেক আশীর্বাদ করি, তুমি যেন তোমার দিদার আশা পূরণ করতে পারো। আমি যেন তোমাকে মানুষের মতো মানুষ করতে পারি।’ এই সময় তিনি ভক্তদের উদ্দেশে বলেন, ‘আপনারা যাঁরা যাঁরা আমার ছেলে জয়কে ভালোবাসেন, তাঁরা সবাই আমার জয়ের জন্য আশীর্বাদ করবেন। আমার জয় যেন মানুষের মতো মানুষ হিসেবে নিজেকে গড়ে তুলতে পারে। এটাই হবে জয়ের জন্য এবারের জন্মদিনের অমূল্য উপহার।’

শাকিব লেখেন, ‘এক চরম বাস্তবতার কারণে হয়তো তুমি আমি সব সময় এক ছাদের নিচে থাকতে পারছি না, কিন্তু আমরা ঠিকই আছি ভালোবাসা আর সুরক্ষার ছায়ায় ও মায়ায়।’
ছেলের প্রথম জন্মদিন বড় আয়োজন করে উদ্‌যাপন করেছিলেন অপু। সেদিনটা আব্রাম বাবা শাকিব খানের সঙ্গেও কাটিয়ে ছিল কিছু সময়। প্রথম জন্মদিনে ছেলেকে উপহার হিসেবে সোনার চেইন দিয়েছিলেন শাকিব। পরে অপু বিশ্বাস আব্রামের জন্মদিন উপলক্ষে গুলশানের একটি পাঁচ তারকা হোটেলে অনেক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিলেন। দ্বিতীয় জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠানেও ছিল আয়োজনের চাকচিক্য।
দেশের সিনেমার জনপ্রিয় তারকা শাকিব খান আর অপু বিশ্বাসের প্রেম ও বিয়ে নিয়ে ভক্তদের কৌতূহলের শেষ ছিল না। ২০১৭ সালের ১০ এপ্রিলে একটি টিভি চ্যানেলের সরাসরি অনুষ্ঠানে এসে বিয়ে ও সন্তানের খবর ফাঁস করেন অপু বিশ্বাস। সেই সময় অপু বিশ্বাস জানান, ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল শাকিব খানের সঙ্গে তাঁর গোপনে বিয়ে হয়েছে। বিয়ের খবর জনসমক্ষে আসার পর দুজনের সম্পর্কের টানাপোড়েন তৈরি হয়। পরিস্থিতি এমন অবস্থায় পৌঁছায় যে শাকিব খান ও অপু বিশ্বাস নিজেদের মধ্যে মুখ দেখাদেখি বন্ধ করে দেন। শুধু ছেলে আব্রামের কারণে মাঝেমধ্যে দেখা হলেও কথা হয় না দুজনের। সেই বছর ২০১৭ সালে ২২ নভেম্বর আইনজীবীর মাধ্যমে অপুর কাছে তালাকের নোটিশ পাঠান শাকিব খান। তিন মাস পর তাঁদের বিচ্ছেদ কার্যকর হয়।

অপু আরও লেখেন, ‘জয়ের গত জন্মদিনের অনুষ্ঠানগুলোর আয়োজন আমার মা-ই করতেন। তিনিই সবচেয়ে বেশি উত্তেজিত থাকতেন জয়ের জন্মদিনের অনুষ্ঠান নিয়ে।’

এদিকে চিত্রনায়ক শাকিব খান তাঁর ফেসবুক পাতায় ছেলে আব্রাম খান জয়কে নিয়ে লিখেছেন, ‘আমার এই ছোট্ট জীবনে ভালোবাসা, সম্মান, সম্মাননা সবকিছু পেয়েছি। আলহামদুলিল্লাহ এখন পর্যন্ত আমার জীবনের সবচেয়ে বড় অর্জন তুমি। আমার ‘জয়’ বাবা। ইনশা আল্লাহ একদিন তুমি আমার চেয়েও সফল এবং অনেক ভালো একজন মানুষ হবে। ছাড়িয়ে যাবে বাবার স্বপ্নের সব সীমানাকেও। তোমার চলার পথে বাবা আমৃত্যু ছায়া হয়ে পাশে থাকবে, যেমনটা এখনো আছে।’ ছেলের কাছ থেকে দূরে থাকার আক্ষেপ প্রকাশ করে শাকিব লেখেন, ‘এক চরম বাস্তবতার কারণে হয়তো তুমি আমি সব সময় এক ছাদের নিচে থাকতে পারছি না, কিন্তু আমরা ঠিকই আছি ভালোবাসা আর সুরক্ষার ছায়ায় ও মায়ায়। তোমাকে আমি সব সময় এবং আজীবন ভালোবাসি বাবা।’

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: