fbpx
প্রচ্ছদ / শিক্ষা / বিস্তারিত

উত্তম চক্রবর্তী

মনিরামপুর(যশোর)

অবশেষে মুক্তামনি দেশের সব মানুষের ভালোবাসার মায়া কাটিয়ে না ফেরার দেশে চলে গেল

২৩ মে ২০১৮, ৪:৩৭:০৪

অবশেষে মুক্তামনি দেশের সব মানুষের ভালোবাসার মায়া কাটিয়ে না ফেরার দেশে চলে গেল


উত্তম চক্রবর্তী,মনিরামপুর(যশোর)অফিস:-

অবশেষে চিকিৎসকদের সব চেষ্টা ব্যর্থ করে দিয়ে এবং দেশের সব মানুষের ভালোবাসার মায়া কাটিয়ে না ফেরার দেশে চলে গেল সাতক্ষীরায় বহুল আলোচিত বিরল রোগে আক্রান্ত কিশোরী মুক্তামনি (১২)।বুধবার সকাল ৮টার কিছুক্ষণ আগে মুক্তামনি মারা যায় বলে জানিয়েছেন তার বাবা ইব্রাহিম হোসেন।

মুক্তামনির বাবা সাতক্ষীরা সদর উপজেলার বাঁশদাহ ইউনিয়নের দক্ষিণ কামারবায়সা গ্রামের ইব্রাহিম হোসেন জানান, গত কয়েকদিন ধরেই জ্বরে আক্রান্ত ছিল শিশুটি। তার হাত অনেক ফুলে দুর্গন্ধ বের হচ্ছিল। কথাও বলতে পারছিল না।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহে দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশের পর টনক নড়ে স্বাস্থ্য বিভাগের। প্রথমে স্বাস্থ্য সচিব তার চিকিৎসার দায়িত্ব নেন। পরে স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার চিকিৎসার দায়িত্বভার গ্রহণ করেন।

এরপর ১১ জুলাই ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয় তাকে। সেখানে মুক্তামনির চিকিৎসায় গঠিত হয় বোর্ড। পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে ধরা পড়ে মুক্তামনির হাত রক্তনালীর টিউমারে আক্রান্ত। তারপর মেডিক্যাল বোর্ডের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী কয়েক দফা অস্ত্রোপচার করে অপসারণ করা হয় তার হাতের অতিরিক্ত মাংস পিণ্ড।
কয়েক দফা অস্ত্রপাচার শেষে গত বছরের ২২ ডিসেম্বর ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল থেকে এক মাসের ছুটিতে বাড়ি আনা হয় মুক্তামনিকে। এরপর আর ঢামেকে যেতে রাজি হয়নি মুক্তামনি। বাড়িতেই কোনো মতে চলছিল তার চিকিৎসা।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: