fbpx

জামালপুরে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরী কাম নৈশ্য প্রহরী পদে নিয়োগ বাণিজ্যের অভিযোগ

২৫ এপ্রিল ২০১৮, ৭:৪৪:২৭

গলাচিপায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠার নামে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে একটি চক্র

জামালপুর সদর উপজেলার দিগপাইত ইউনিয়নের হবদেশ ও ডোয়াইলপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরী কাম নৈশ্য প্রহরী পদে নিয়োগে বাণিজ্যের অভিযোগ। জানা যায়, গত প্রায় ১ মাস আগে উপজেলা প্রশাসনের মাধ্যমে এই নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। পরীক্ষার শুরুতেই বিতর্কৃত এই নিয়োগ নিয়ে স্থানীয় পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ হলেও থেমে থাকেনি নিয়োগ প্রক্রিয়া।

এরই ধারাবাহিকতায় নিয়োগ বাণিজ্যের মাধ্যমে হবদেশ ও ডোয়াইলপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরী কাম নৈশ্য প্রহরী পদে আহসান এবং শফিকুলকে নিয়োগ প্রদান করে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস। এই নিয়োগে হাতিয়ে নেওয়া হয় কয়েক লক্ষ টাকা এ বিষয়ে দিগপাইত ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ নুরুল ইসলাম নুরু ও সাধারণ সম্পাদক আনিছুর রহমান পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি নিকট একটি লিখিত অভিযোগ দেন। অভিযোগের মাধ্যমে জানা যায়, দিগপাইত ইউপি চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি এ.কে.এম মহসীনুজ্জামান স্থানীয় সংসদ সদস্যের নাম ভাঙ্গিয়ে প্রায় ১০ লক্ষ টাকা প্রার্থীদের কাছ থেকে নিয়ে তাদের নিয়োগ দেন। সেখানে দলীয় নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন না করে অর্থ গ্রহণের মাধ্যমে বিতর্কৃত ব্যক্তিদেরকে নিয়োগ দেন।

এ নিয়ে স্থানীয়দের মাঝে দেখা দিয়েছে বিরুপ প্রতিক্রিয়া তারা দুর্নীতি দমন কমিশনের সহযোগিতা কামনা করেন। এ বিষয়ে হবদেশ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষিকা নাজনিন আক্তার বলেন, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার মাধ্যমে নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেখান থেকেই আহসানকে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে আমার বিদ্যালয়ে। ডোয়াইল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষিকা বিউটি আক্তার বলেন, নিয়োগে আমাদের কোন হাত নেই। উপজেলা প্রশাসন পরীক্ষার মাধ্যমে নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেছেন।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নিয়োগ কমিটির সভাপতি ডা. মফিজুর রহমান বলেন, নিয়োগের জন্য কেউ যদি কোন ধরণের লেনদেন করে থাকে এবং প্রমাণিত হয় তবে তাদের বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: