বিশেষ সাক্ষাৎকার

দলীয় মনোনয়ন পেলে অাগামী উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করবো ইনশাআল্লাহ – কাজী মাহমুদুর রহমান

১৫ নভেম্বর ২০১৮, ১১:০০:৩৭

কাজী মাহমুদুর রহমান (ডাবলু) ২০০৯ সাল থেকে তেঁতুলিয়া উপজেলা অাওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করে অাসছেন। তারও পূর্বে দীর্ঘদিন যুগ্ম সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেছেন। বর্তমান উপজেলা অাওয়ামী লীগের অভিভাবক তিনি। তেঁতুলিয়ার রাজনীতি, সমস্যা, সম্ভাবনা ও অাগামী নির্বাচন নিয়ে তার সাথে কথা বলেছেন অামাদের জেলা প্রতিনিধি ডি. এম. অারাফাত হোসাইন।

অালোর প্রতিদিনঃ প্রায় অাঠার বছর যাবৎ উপজেলা অাওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক থেকে সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছেন। তেঁতুলিয়া অাওয়ামী লীগ বলতে কাজী ডাবলুকেই বোঝায়। এই সাফল্যের রহস্য কি?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ ছাত্র জীবন থেকে অামি অাওয়ামী লীগের রাজনীতির অাদর্শে নিবেদিত একজন কর্মী। দলের জন্য একনিষ্ঠ শ্রম, ভালোবাসা এবং দলীয় হাই কমান্ডের নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ করা এবং দলীয় নেতাকর্মীদের সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগের ফলে অামার প্রতি তাদের অাস্থারই প্রতিদান বর্তমান উপজেলা অাওয়ামী লীগ।

অালোর প্রতিদিনঃ বিগত দশ বছর যাবৎ দল ক্ষমতায়। দশ বছর অাগের চেয়ে বর্তমান উপজেলা অাওয়ামী লীগের সাংগঠনিক অবস্থা কেমন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ দশ বছর অাগের উপজেলা আওয়ামী লীগের চেয়ে বর্তমানে অামরা অনেক বেশি সুসংগঠিত। কারণ তৃণমূল পর্যায়ে সকল স্তরের নেতাকর্মীদের সাথে যোগাযোগের ফলে দলের সাংগঠনিক অবস্থান উন্নত হয়েছে। প্রমাণস্বরূপ বলা যায় যে ১৯৮৬ সালের পর ২০০৮ সালে অাওয়ামী লীগ প্রার্থী জননেতা জনাব মজাহারুল হক প্রধান পঞ্চগড় -১ অাসনে বিপুল ভোটে জয়লাভ করেন।

অালোর প্রতিদিনঃ ক্ষমতাসীন দলের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্বে রয়েছেন। এটি কেমন উপভোগ করেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ অামি মনে করি দায়িত্ব উপভোগের চেয়ে সঠিকভাবে তা পালন করা বেশি চ্যালেঞ্জিং। অামি সেভাবেই তা পালন করি।

অালোর প্রতিদিনঃ উপজেলা অাওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠনগুলোর বর্তমান অবস্থা কেমন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ অাওয়ামী লীগের ভাতৃপ্রতিম সহযোগী সংগঠনগুলোর সাথে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ থাকার ফলে বর্তমান অবস্থা অনেক ভালো।

অালোর প্রতিদিনঃ সম্প্রতি উপজেলা যুবলীগ এবং ছাত্রলীগে অন্তঃকোন্দল দৃশ্যমান রূপ নিয়েছে। এর কারণ কি বলে অাপনি মনে করেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ বাংলাদেশের স্বাধীনতার পক্ষের মূল সর্ববৃহৎ শক্তি বাংলাদেশ অাওয়ামী লীগের তেঁতুলিয়া উপজেলায় সহযোগী সংগঠন যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নিয়মমাফিক কমিটি না হওয়ায় জেলা থেকে পকেট কমিটি করায় এবং উক্ত কমিটিতে অন্যান্য দলের সদস্যদের অন্তর্ভুক্ত করার ফলে নিবেদিত প্রাণ কর্মীদের মাঝে অসন্তোষ দেখা দিয়েছে।

অালোর প্রতিদিনঃ এই কোন্দলের পেছনে একপক্ষ অাপনার ভূমিকা রয়েছে বলে অভিযোগ করে। এ ব্যাপারে অাপনার বক্তব্য কি?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ ছাত্রলীগের পকেট কমিটির সভাপতি ও সম্পাদককে অন্যান্য নেতাকর্মীরা মেনে নেয় না। এখানে অামার কোন ভূমিকা নেই।

অালোর প্রতিদিনঃ বর্তমান সরকারের সময়ে তেঁতুলিয়া উপজেলায় কি কি উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড সম্পন্ন হয়েছে?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় তেঁতুলিয়া উপজেলায় বহুবিধ উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড সম্পন্ন হয়েছে। তার মধ্যে বাংলাবান্ধা স্থলবন্দর, বিদ্যুৎ, রাস্তাঘাট, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সরকারীকরণ, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো­তে বহুতল ভবন নির্মাণ, যোগাযোগ ব্যবস্থা, মসজিদ, মন্দির, ক্রীড়া প্রভৃতি ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য উন্নয়ন হয়েছে।

অালোর প্রতিদিনঃ এছাড়া অার কোন কোন ক্ষেত্রে উন্নয়ন প্রয়োজন প্রয়োজন বলে অাপনি মনে করেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ বিদ্যুৎ ক্ষেত্রে শতভাগ সেবা নিশ্চিতকরণ এবং ক্রীড়া ক্ষেত্রে অারও উন্নয়নের জন্য স্টেডিয়াম নির্মাণ প্রয়োজন।

অালোর প্রতিদিনঃ অাগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পঞ্চগড় -১ অাসনে মহাজোটের প্রার্থী হিসেবে কাকে যোগ্য মনে করেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ অাসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পঞ্চগড় -১ অাসনে মহাজোট প্রার্থী হিসেবে তৃণমূলের অাস্থা সাবেক সংসদ সদস্য জননেতা জনাব অালহাজ্ব মো. মজাহারুল হক প্রধানকে যোগ্যপ্রার্থী মনে করি।

অালোর প্রতিদিনঃ অাগামী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে অাপনার নির্বাচন করার কথা শোনা যাচ্ছে?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ অাওয়ামী লীগের একজন নিবেদিত প্রাণ কর্মী হিসেবে দলীয় মনোনয়ন পেলে অাগামী উপজেলা পরিষদে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করবো ইনশাআল্লাহ।

অালোর প্রতিদিনঃ উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলে কোন কোন ক্ষেত্রে উন্নয়নকে প্রাধান্য দিবেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলে শিক্ষা, ক্রীড়া, বিদ্যুৎ, রাস্তাঘাট ইত্যাদি ক্ষেত্রে প্রাধান্য থাকবে।

অালোর প্রতিদিনঃ মাদক বিরোধী অভিযানের পরেও তা নির্মূল সম্ভব হচ্ছেনা। এ ব্যাপারে অাপনার বক্তব্য কি?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ চলমান মাদক বিরোধী অভিযানের ফলে মাদক সমস্যা অনেকটাই নিয়ন্ত্রনে এসেছে। কিন্তু শতভাগ মাদক নির্মূল করতে হলে এই অভিযান চলমান রাখতে হবে।

অালোর প্রতিদিনঃ পরিবেশ বিধ্বংসী ড্রেজার মেশিন বন্ধ করা সম্ভব হচ্ছেনা। এজন্য কোন জায়গায় ঘাটতি রয়েছে বলে মনে করেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ যেহেতু ড্রেজার মেশিন পরিবেশের জন্য খুবই ক্ষতিকর তাই এবিষয়ে সকলের সচেতনতা প্রয়োজন।

অালোর প্রতিদিনঃ সীমান্তবর্তী উপজেলা হওয়ায় চোরাচালানের মত ঘটনা ঘটে থাকে। এটি বন্ধে কোন পদক্ষেপ নেওয়ার কথা জানেন কি?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ বর্তমান সরকারের ব্যাপক উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের ফলে মানুষের কর্মপরিধি অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। তাই, চোরাচালান নেই।

অালোর প্রতিদিনঃ উপজেলায় অন্যান্য রাজনৈতিক দলগুলোর সাথে অাওয়ামী লীগের সম্পর্ক কেমন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ বাংলাদেশের সর্ব উত্তরের শান্তিপ্রিয় একটি উপজেলা তেঁতুলিয়া। স্বাধীনতা বিরোধীবাদে সকল দলের নেতাকর্মীদের এখানে সৌহার্দপূর্ণ অবস্থান রয়েছে।

অালোর প্রতিদিনঃ উপজেলা অাওয়ামী লীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের অাপনি ভরসাস্থল। বলা যায় অাপনার বিকল্প অাপনি নিজেই। এটি কিভাবে সম্ভব করলেন?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ
দীর্ঘকাল ধরে মাটি ও মানুষের রাজনীতির সঙ্গে সম্পৃক্ত হওয়ায় সর্বস্তরের মানুষের সুখ, দুঃখে সবসময় তাদের পাশে থাকার চেষ্টা করে চলেছি। অামি মনে করি অাজকের অবস্থান মানুষের ভালবাসার প্রতিদান।

অালোর প্রতিদিনঃ ভবিষ্যতে কেমন তেঁতুলিয়া দেখতে চান?

কাজী মাহমুদুর রহমানঃ তেঁতুলিয়া উপজেলা হবে শিক্ষা ও ক্রীড়াক্ষেত্রে উন্নত একটি উপজেলা। বাংলাবান্ধা স্থলবন্দরের কর্মচাঞ্চল্য তেঁতুলিয়ার অর্থনৈতিক গতিশীলতা এনে দিবে। তাছাড়া, সবুজ চায়ের সমাহার এবং প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি হিসেবে তেঁতুলিয়া হবে বাংলাদেশের গুরুত্বপূর্ণ একটি পর্যটন কেন্দ্র।

অালোর প্রতিদিনঃ অাপনাকে ধন্যবাদ।
কাজী মাহমুদুর রহমানঃ ধন্যবাদ।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: