প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

পার্বতীপুরে ধর্ষণের শিকার হয়ে সাড়ে ৩ বছরের এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে

১ ডিসেম্বর ২০১৯, ৮:২৮:৪৬

এহসান প্লুটো,দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ
দিনাজপুর জেলার পার্বতীপুর উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের রঘুনাথপুর ডাঙ্গাপাড়া গ্রামে ধর্ষণের শিকার হয়ে সাড়ে ৩ বছরের এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। নিহত শিশু মিম ওই গ্রামের আরিফুল ইসলামের মেয়ে। নিহত মিমের বাবা-মা জানান, শনিবার দুপুর আনুমানিক ২টা ৩০ মিনিট থেকে তাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। অনেক খোঁজাখুজির পর একই গ্রামের আমজাদ (২০) এর বাড়িতে গেলে তালাবদ্ধ দেখতে পাওয়ায় পার্বতীপুর মডেল থানা পুলিশে খবর দেন এলাকাবাসী।

পরে পুলিশ ও এলাকাবাসী ঘরের দরজা ভেঙে টেবিলের নিচ থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় ওই শিশুকে উদ্ধার করে। তাৎক্ষনিক গ্রামবাসীর সহায়তায় পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করেন। এরই মধ্যে আমজাদ হোসেন পালিয়ে যায়। পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার (আরএমও) আলম মিয়া জানান, অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। পার্বতীপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-ওসি (তদন্ত) মোঃ সোহেল রানা শিশুটির ধর্ষণ ও মৃত্যুর সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, শিশুটিকে আমজাদ হোসেনের শয়নকক্ষ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। আমজাদই শিশুকে ধর্ষণ করেছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। ওই শিশুর মামা আবু সায়েম জানায়, আমজাদের বাড়ির পাশে মিমসহ তার বন্ধুরা খেলতে গেলে ওই যুবক জানালা দিয়ে মিমকে চকলেটের প্রলোভন দেখিয়ে ঘরে নিয়ে যায়। এই কথা জানায়,ওই এলাকার রাশেদুল ইসলামের ছেলে জিহাদ (৫)। তার কথার ভিত্তিতে মিমের পরিবার আমজাদের বাড়িতে গেলে তালাবদ্ধ দেখতে পাওয়ায় পার্বতীপুর মডেল থানা পুলিশে খবর দেন। পরে পুলিশ ও এলাকাবাসী ঘরের দরজা ভেঙে টেবিলের নিচ থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় ওই শিশুকে উদ্ধার করে। এ ব্যাপারে পার্বতীপুর থানায় মামলা হয়েছে।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: