পুরোনো মডেলের ফোনের গতি কমানোয় অ্যাপলের জরিমানা

৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১০:৩২:১৩

ব্যবহারকারীদের না জানিয়ে ইচ্ছা করেই পুরোনো মডেলের আইফোনের গতি কমিয়ে দেওয়ার ঘটনায় প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান অ্যাপলকে ২ কোটি ৭০ লাখ ডলার জরিমানা করা হয়েছে। ফ্রান্সের একটি তদারকি সংস্থা এই জরিমানা করে। বলা হচ্ছে, গ্রাহকদের আগে থেকে সতর্ক না করেই পুরোনো মডেলের আইফোনের গতি ধীর করে দিচ্ছিল অ্যাপল।

বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে জানানো হয়, ফ্রান্সের প্রতিযোগিতা ও প্রতারণাবিষয়ক তদারকি সংস্থা ডিজিসিসিআরএফ এই জরিমানা আরোপ করেছে। ২০১৭ সালে অ্যাপল জানিয়েছিল, কিছু কিছু আইফোনের গতি কমিয়ে দেওয়া হয়েছিল। তবে প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানটি তখন এও বলেছিল, ডিভাইস আরও বেশি দিন যাতে কার্যকর থাকে, সেই জন্যই এ কাজ করা হয়েছিল।

ফরাসি সংস্থা ডিজিসিসিআরএফ বলছে, আইফোনের গ্রাহকেরা জানতেন না যে আইওএস আপডেট নেওয়ার কারণে তাঁদের ডিভাইসের গতি কমে যেতে পারে। তবে চুক্তির শর্ত হিসেবে অ্যাপলের উচিত ছিল এ–সংক্রান্ত নোটিশ দেখানো। কিন্তু অ্যাপল এ কাজ করেনি। তাই প্রতিষ্ঠানটিকে জরিমানা করা হয়েছে এবং অ্যাপল তা পরিশোধে সম্মত হয়েছে।

অ্যাপল এক বিবৃতিতে বলেছে, ডিজিসিসিআরএফের আরোপ করা জরিমানার বিষয়টি এরই মধ্যে মিটিয়ে ফেলা হয়েছে।

আইফোনের অনেক গ্রাহকের অভিযোগ ছিল, নতুন মডেলের ফোন বাজারে আনার পর অ্যাপল ইচ্ছা করেই পুরোনো মডেলের ফোনগুলোর গতি কমিয়ে দেয়। কিছু গ্রাহকের দাবি, মূলত নতুন মডেলের ফোনের বিক্রি বাড়ানোর জন্যই অ্যাপল এই কাজ করে থাকে।

অবশ্য প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানটি বরাবরই এমন অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে। অ্যাপলের দাবি, নতুন মডেলের ফোনের বিক্রি বাড়াতে নয়, বরং বেশি দিন টিকিয়ে রাখার জন্যই পুরোনো কিছু মডেলের আইফোনের গতি কমিয়ে দেওয়া হয়েছিল।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: