করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ২,৯৯৬ ◈ আজকে মৃত্যু : ৩৩ ◈ মোট সুস্থ্য : ১৫১,৯৭২
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়নের ধারার প্রতিচ্ছবি পটুয়াখালী জেলা

৯ জুলাই ২০২০, ২:১৫:৫২

মোঃ শফিকুল ইসলাম জেলা প্রতিনিধি পটুয়াখালী
মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সুদৃষ্টিতে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রয়েছে পটুয়াখালী জেলার প্রতিটি স্থানে। পটুয়াখালী জেলার প্রথম পদক্ষেপ পটুয়াখালী ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পদোন্নতি দেওয়া। নার্সিং ইনস্টিটিউট অবস্থা জীর্ণশীর্ণ ছিল আজ বিশাল আকৃতির ভবন নির্মিত হয়েছে।

পায়রা নদীর উপর লেবুখালী সেতুর কাজ পুরোদমে চলছে। শেখ রাসেল, শেখ জামাল, শেখ কামাল সেতু যা কিনা পটুয়াখালী বাসির গর্ব। সমুদ্র সৈকত কুয়াকাটা যেতে হলে বিগত বছরগুলোতে পাড় হতে হতো বেশ কয়েকটি নদী যা ফেরীর মাধ্যমে পাড়াপাড় হতো। যেটি ছিল অনেক সময় সাপেক্ষ ব্যাপার এবং জনগন ও পর্যটকদের চরম ভোগান্তির কারণ। বেশ কিছু বছর আগেই সেই ভোগান্তির অবসান ঘটিয়ে দিয়েছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পটুয়াখালী বাসির সবচেয়ে আনন্দও গৌরবের বিষয় হল কলাপাড়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র ও বিশাল সাফল্য পায়রা বন্দর যেটি বাংলাদেশের তৃতীয় বৃহত্তর নদী বন্দর। যেখানে মংলা বন্দরের চ্যানেলের গভীরতা নিয়ে প্রশ্ন আছে, সেখানে পায়রা বন্দরে যেকোনো বিনদেশী জাহাজ অনায়াসে নোঙর করতে পারবে ও মালামাল লোড-আনলোড করতে পারবে।

বন্দরটি বিশাল জায়গা নিয়ে নির্মিত হয়েছে। বর্তমানে সীমিত আকারে চলছে বন্দর কার্যক্রম। পটুয়াখালী সরকারি জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্র শীর্ষেন্দুর এক চিঠিতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আবেগাপ্লুত হয়ে ছোট ছেলেটির কথা রেখেছেন। পায়রা নদীর উপর হতে চলেছে এক বিশাল সেতু। পটুয়াখালী উপজেলা শেষপ্রান্তে ইটবাড়িয়া ইউনিয়ন এর মধ্যকার সেতুটিও অনুমোদন প্রাপ্ত হয়েছে এবং মাটি পরীক্ষা করা হয়েছে। খুব শীঘ্রই কাজ শুরু হবে। এবার পটুয়াখালী শহরের চিত্রে আসি, তিতাস মোড়ে গড়ে উঠেছে শেখ রাসেল শিশু পার্ক পাশের লেকটি ভরাট করে খুব শীঘ্রই তৈরি করা হবে দর্শনীয়স্থান।

এলজিইডি, R H D , পৌর মেয়র, উপজেলা ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এবং আওয়ামী লীগের সকল পর্যায়ের নেতা ও নেত্রীগন সার্বিক সহায়তা করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে। নভেল করোনা ভাইরাসের কারনে কিছু স্থানের কাজ ধীরগতিতে চলছে।
পটুয়াখালীবাসী ধন্যবাদ জানায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে দক্ষিণ অঞ্চলের মানুষের কথা ভাবার জন্য এবং জনগণের পাশে থাকার জন্য।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: