করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ৩,২০১ ◈ আজকে মৃত্যু : ৪৪ ◈ মোট সুস্থ্য : ৭৬,১৪৯
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গায় ৬৫ টি অসহায় পরিবারকে খাদ্য উপহার দিয়েছে “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশন”

২৬ মে ২০২০, ৮:৫৭:৪২

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ করোনার নিষ্ঠুর আঘাতে সারা পৃথিবী যখন স্থবির, যখন অর্ধাহারে -অনাহারে দিন কাটাচ্ছে দেশের কর্মহীন মধ্যবিত্ত, নিম্নমধ্যবিত্ত এবং নিম্নবিত্তের মানুষেরা। ঠিক তখনই মানবতার হাত বাড়িয়ে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশন”।

ফরিদপুর জেলার আলফাডাঙ্গা উপজেলার ৯ টি গ্রামের ৬৫ টি পরিবারের মাঝে “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশনের” পক্ষ থেকে উপহার সামগ্রী বিতরণ করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজকল্যাণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের শিক্ষার্থী সজীব বিশ্বাস।

আজ সকাল ১১ ঘটিকায় “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশনের” প্রেরণকৃত অর্থের উপহার সামগ্রী আলফাডাঙ্গা উপজেলার গাজীপুর, শ্রীরামপুর, নওয়াপাড়া,হেলেঞ্চা,বেজিডাঙ্গা,কুলুপাড়া,বেলবানা,কুচিয়াগ্রাম, মাঝি টিকরপাড়া গ্রামের ৬৫ টি পরিবারের মাঝে বিতরণ করা হয় সজীব বিশ্বাসের তত্ত্বাবধায়নে। উপহার গ্রহণকালে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এবং ব্যাক্তিগত নিরাপত্তা নিশ্চিত করে উপহারগ্রহণকারীরা উপহার গ্রহণ করে।

উপহার সামগ্রীর মধ্যে ছিল চাল-৫কেজি, আলু-২কেজি, আটা-২ কেজি, লবন- ১ কেজি, সাবান ১টি, কুমড়া ১টি । “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশন” কর্তৃক প্রদানকৃত উপহার পেয়ে আলফাডাঙ্গা উপজেলার ৯ টি গ্রামের মানুষ আন্তরিক কৃতজ্ঞতা স্বীকার করেছে এবং দেশের ক্রান্তিকালে তাদের পাশে এভাবেই দাঁড়ানোর আবেদন জানিয়েছে।

উপহার সামগ্রী বিতরণের পুরো প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করেছে “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশনের” ফরিদপুরের স্বেচ্ছাসেবক সজীব বিশ্বাস এবং সহযোগীতায় ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রেজাউল করিম রাজু এবং শাহরিয়া নাজিম শাওন।

প্রসঙ্গত “মানুষ মানুষের জন্য ফাউন্ডেশন” একটি আমেরিকান ভিত্তিক বাংলাদেশি সংগঠন। সংগঠনটির প্রতিষ্ঠাতা ও সভাপতি ড.চন্দ্র নাথ। তিনি বুয়েট থেকে পড়াশুনা করে বর্তমানে আমেরিকা হিটাচি ম্যানুফ্যাকচারিং এর রিসার্চার হিসেবে কর্মরত আছেন। বাংলাদেশে শিক্ষা, চিকিৎসা সহায়তা ও জরূরী ত্রাণ বিতরণের মাধ্যমে সংগঠনটি সারা দেশ ব্যাপী সুনাম কুড়িয়েছে।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: