fbpx
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

লোকমান হোসেন রানা

নিজস্ব প্রতিনিধি (যশোর)

বেনাপোলের মোবাইল বাবুর ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী

২৪ জুন ২০১৯, ১০:৩২:২৩

মোঃলোকমান হোসেন(রানা),নিজস্ব প্রতিনিধি:-
যশোর বেনাপোলের তালশারী গ্রামের রুবেল হোসেনের কাছে হুন্ডি ব্যবসায়ী মোস্তাফিজুর রহমান বাবু ওরফে মোবাইল বাবু ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

(রবিবার ২৩শে জুন)দুপুরে প্রেসক্লাব যশোরে এক সংবাদ সম্মেলনে এই অভিযোগ করেন রুবেল হোসেনের স্ত্রী সুখমনি। চাঁদার টাকা না দিলে তাদের হত্যার হুমকিও দেওয়া হয়েছে বলে দাবি করেন তিনি।সংবাদ সম্মেলনে রুবেলের স্ত্রী সুখমনি আরও অভিযোগ করেন,বেনাপোলে নয়ন নামে এক সাংবাদিক তাদের বিভিন্ন সমস্যা করতেন।সমস্যা থেকে বাঁচতে এলাকার নুরুজ্জামানের পরামর্শে তারা বাবুর কাছে যান। বাবু আমার স্বামী রুবেলকে একটি পত্রিকার কার্ড করে দেন।যার খরচ বাবদ ৮০ হাজার টাকা ও ধার হিসেবে ২০ হাজার টাকা নেন। এখন আবার তিনি ১০ লাখ টাকা চাঁদাও দাবি করছেন। টাকা দিতে অস্বীকার করলে বাসায় হেরোইন রেখে পুলিশে দেওয়ার পাশাপাশি হত্যার হুমকি দেয় বলে সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করেন রুবেলের স্ত্রী সুখমনি।এ সময় সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী রুবেল হোসেনও উপস্থিত ছিলেন।সে বন্দর প্রেসক্লাব বেনাপোলের সহ-অর্থ সম্পাদক ছিল বলে জানা যায়।বেনাপোল বাসি সুত্রে জানা যায়, বেনাপোলের কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী বেগী সেলিম বন্দুক যুদ্ধে নিহত হওয়ার পর তার স্ত্রী আছমা এখন এই মোবাইল বাবুর দ্বিতীয় স্ত্রী।নিহত সেলিমের স্ত্রী আছমা তিনিও মাদক ব্যবসায়ী।মোবাইল বাবুর দ্বিতীয় স্ত্রী আছমার নামে বেনাপোল পোর্ট থানায় একাধিক মাদক মামলা রয়েছে বলে জানাযায়।বিভিন্ন সুত্রে জানা যায়, বেশ কিছুদিন আগে মোবাইল বাবু ভারতীয় চোরাই মোবাইলসহ যশোর গোয়েন্দা শাখা পুলিশের হাতে আটক হয়েছিল।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: