মতলব উত্তরে জেলেদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ

২৯ এপ্রিল ২০১৮, ৯:১৭:৫৭


মো. দ্বীন ইসলাম ॥

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এমপি বলেছেন, অসৎ কিছু জেলে নদীতে কারেন্ট জাল ফেলে জাটকা মাছ নিধন করে দেশের অর্থনৈতিক মুদ্রা নষ্ট করে। ছোট ছোট এই জাটকা মাছ একদিন বড় ইলিশে রূপান্তরিত হবে। জাটকা এক সময় বড় হয়ে জাতীয় আয় বয়ে আনবে। জেলেরা নদীতে মাছ ধরা ছাড়া অন্য কাজ করতে পারে না। তারা শুধু নদীতে মাছ ধরার কাজে নিয়োজিত থাকে। বর্তমান সরকার ২ মাস নদীতে জাল ফেলা নিষিদ্ধ করার কারণে তাদের মাঝে আর্থিক সহযোগিতা প্রদান করে। বর্তমান সরকার কারেন্ট জালে কারখানা বন্ধ করে দিয়েছে। এগুলো বন্ধ হওয়ার জন্য সরকার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করছে। আজকে যে উপকরণ দেয়া হলো- তার সঠিক ব্যবহার করে জেলেরা স্বচ্ছল ভাবে দিনাতিপাত করতে পারবে। সঠিক ভাবে এর ব্যবহার করতে আহ্বান জানান। তিনি জেলেদের হাতের কাজ শিখার জন্য বলেন। জেলেদের অর্থনৈতিক ভাবে স্বাভলম্বী করতে সরকার বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নিয়েছে।

বৃহত্তর কুমিল্লা জেলা মৎস্য উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় ২০১৭-১৮ অর্থ বছরে নিবন্ধিত জেলেদের বিকল্প কর্মসংস্থানে আয় বর্ধন ও জাল বিনিময় কার্যক্রমে চাঁদপুরের মতলব উত্তরে জেলেদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এমপি। শনিবার সকালে মন্ত্রীর নিজ বাড়ী মতলব উত্তর উপজেলার মোহনপুর আলী ভিলায় ৪০ জন জেলের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণকালে তিনি এ সব কথা বরেন।

মতলব উত্তর উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আক্তারের সভাপতিত্বে ও সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা সাখাওয়াত হোসেনের স ালনায় আরো বক্তব্য রাখেন, চাঁদপুর জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মনজুর আহমদ, ছেঙ্গারচর পৌরসভার মেয়র রফিকুল আলম জজ প্রমুখ। উপস্থিত ছিলেন, মতলব দক্ষিণ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শাহিদুল হক, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এইচএম জাহাঙ্গীর আলম, মোহনপুর ইউপি চেয়ারম্যান সামছুল হক চৌধুরী বাবুল, বৃহত্তর মতলব উপজেলা সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার তমিজ উদ্দিন আহমদ, কলাকান্দা ইউপি চেয়ারম্যান ছোবহান সরকার (সুভা), শিল্পপতি আনিসুল হক, উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি হাজী অখিল উদ্দিন, সাধারন সম্পাদক জিএম ফারুক প্রমুখ।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: