করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ১,১৬৬ ◈ আজকে মৃত্যু : ২১ ◈ মোট সুস্থ্য : ৭,৫৭৯
প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

করোনা ভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে সচেতন হওয়ার আহবান উপজেলা চেয়ারম্যানের

২৬ মার্চ ২০২০, ১০:৩৫:৩৩

চাঁদপুর মতলব উত্তর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা এমএ কুদ্দুস বলেছেন, করোনা ভাইরাস বিশ্বব্যাপী মহামারি আকার ধারণ করেছে। আমাদের দেশেও ইতিমধ্যেই এই রোগে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। এই রোগ নিয়ে এলাকার মানুষ এক প্রকার আতঙ্কে আছে। এলাকার মানুষের প্রতি আমার অনুরোধ থাকবে, আতঙ্কিত না হয়ে সবাই যেন সচেতন হয়। লক ডাউন সময় কালীন আমরা প্রয়োজন ছাড়া বাইরে না বের হই। বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) করোনা ভাইরাস নিয়ে এলাকার মানুষের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে একান্ত স্বাক্ষাত কারে তিনি এসব কথা বলেন তিনি।

চেয়ারম্যান বলেন, ধর্মীয় রীতিনীতি পালন, সব সময় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা অবলম্বন এবং সরকারের নির্দেশনা মেনে চললে অবশ্যই এই ভাইরাস থেকে রক্ষা পাওয়া যাবে। তিনি এলাকার মানুষের উদ্দেশ্যে বলেন, দয়া করে এই বিপদে একজন আরেকজনের প্রতি আন্তরিক হবেন। এলাকার বিদেশ ফেরত প্রবাসীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা আমাদের ভাই। দয়া করে বিদেশ থেকে দেশে এসে ১৪ দিন হোম কোয়ারিন্টনে থাকবেন। পরিবারে আলাদা একটা রুমে কিছুদিন অবস্থান করবেন। এ সময়টুকুতে কোনো অবস্থাতেই বাড়ির বাইরে বের হবেন না। আপনার সচেতনতায় শুধু আপনার পরিবার, সন্তান-সন্তানাদি নয় এলাকার মানুষ শান্তিতে থাকবে, সুস্থ থাকবে, নিরাপদ থাকবে। অনেক জায়গায় প্রবাসী ভাইয়েরা দেশে এসে নিজেদের ইচ্ছেমতো ঘুরাফেরা করছে। এই বিষয়ে আমাদেরকে সামাজিক সচেতনতা বাড়াতে হবে। বিদেশ ফেরত ব্যক্তি ছাড়া আমাদের দেশে করোনা ভাইরাস ছড়ার সুযোগ কম। তাই প্রবাসী ভাইদের সচেতন হতে হবে।
চেয়ারম্যান এমএ কুদ্দুস বলেন, এলাকার মানুষের সুখে-দুঃখে আমি সব সময় পাশে ছিলাম। আমি আমার সাধ্যের সবটুকু দিয়ে এই বিপদের সময়ে এলাকার মানুষের পাশে থাকবো। তারা যাতে আতঙ্কিত না হয়ে সামাজিক সচেতনতা সৃষ্টি করে সুন্দরভাবে জীবন-যাপন করে আমি এলাকার মানুষের কাছে এই আহবান জানাচ্ছি।
তিনি বলেন, করোনা ভাইরাস নিয়ে সাধারণ মানুষ যখন অনেকটা আতঙ্কে দিনাতিপাত করছে সেই সময়ে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম বাড়িয়ে দেয়। আমি ব্যবসায়ীদের প্রতি অনুরোধ করবো, দয়া করে মানুষের বিপদের সময়ে এই কাজ করবেননা।

তিনি আরো বলেন, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী ও আধুনিক বাংলাদেশের রূপকার, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা দিয়েছেন। আমরা যদি সকলে সরকারের নির্দেশনা মেনে চলি তাহলে এই ভাইরাস প্রতিরোধ করা সম্ভব। মাননীয় প্রধান মন্ত্রী বলেছেন দেশে বর্তমানে খাদ্য মজুত আছে। দরিদ্রপীড়িত অসহায় দিনমজুর মানুষদের জন্য সরকারি ভাবে প্রয়োজন অনুযায়ী সাহায্য সহযোগিতা করা হবে। তারপরও এলাকার গরীব, অসহায় আর সামর্থ্যহীন কোনো পরিবার যদি কোনো সঙ্কটে পড়েন তাহলে তাদের জন্য আমার সহযোগিতার হাত সব সময় থাকবে। তাদের যে কোনো প্রয়োজনে আমি পাশে থাকবো। তিনি সরকারের সিদ্ধান্ত মোতাবেক মতলব উত্তর উপজেলাবাসীকে ঘর থেকে বের না হওয়ার জন্য অনুরোধ করেন। এছাড়া ও তিনি এলাকার বিত্তশালীদেরকে হত দরিদ্র্রদের সাহায্যে এগিয়ে আসতে ও শিক্ষিত সমাজকে জন সচেতনতা বৃদ্ধিতে এগিয়ে আসতে আহবান জানান।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: