করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ২,৭৬৬ ◈ আজকে মৃত্যু : ৩৪ ◈ মোট সুস্থ্য : ১৫৬,৬২৩
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

মিরসরাইয়ে ডাকাতের দেয়া তথ্যে ভারতীয় মালামাল উদ্ধার

১২ ডিসেম্বর ২০১৯, ৯:২২:৪৪

মিরসরাই প্রতিনিধি:::
মিরসরাইয়ে গ্রেফতারকৃত এক ডাকাতের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে বেশ কিছু ভারতীয় মালামাল উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (১০ ডিসেম্বর) রাতে খইয়াছড়া ইউনিয়নের পূর্ব পোলমোগরা গ্রামের মাসুদ ও মো.আরাফাতের ঘর থেকে মালামাল গুলো উদ্ধার করা হয়। মালামাল গুলোর মধ্যে রয়েছে একটি ভারতীয় আইডি কার্ড, ডাইভং লাইন্সেস, বার’শ ভারতীয় রুপি, ব্যাংকের ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ড, ভারতীয় নাগরিকদের চাকুরি করা একটি কোম্পানীর কার্ড ও ভারতীয় নাগরিকদের ব্যবহৃত একটি ব্যাগ।

জানা গেছে, গত ২৩ নভেম্বর রাতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কলঘর এলাকায় কৌশিক ভট্টাচার্য ও আকিব জাফের নামে দুই ভারতীয় নাগরিককে বহনকারী একটি মাইক্রোবাসে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। এসময় ডাকাতদল তাদের কাছ থেকে ল্যাপটপ, থিংক প্যাড, হার্ডডিক্স, ভারতীয় ব্যাংকের একাধিক ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ড, মোবাইল সেট, ইবা সফটওয়ারের লাইন্সেস, একটি ভারতীয় পাসপোর্ট, ছয় হাজার ভারতীয় রুপিসহ কয়েক লাখ টাকা মালামাল লুট করে নেয়। এঘটনায় কৌশিক ভট্টাচার্য বাদি হয়ে মিরসরাই থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলার সূত্র ধরে পুলিশ গত ২৮ নভেম্বর রাতে খইয়াছড়া ইউনিয়নের পূর্বপোলমোগরা গ্রামের মৃত জসীম উদ্দিনের ছেলে মো.মাসুদকে গ্রেফতার করে। পরে তাকে গত ১০ ডিসেম্বর ৭ দিনের রিমান্ড আবেদন করলে আদালত দুই দিনের রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করে। রিমান্ডের প্রথম দিনে সে ডাকাতির সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। এসময় তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে মঙ্গলবার রাতে তার ঘরসহ মো.আরাফাত নামে আরেক জনের ঘর থেকে ভারতীয় নাগরিকদের নিয়ে যাওয়া কিছু মালামাল উদ্ধার করা হয়।

মিরসরাই থানার পরিদর্শক (তদন্ত) বিপুল দেবনাথ জানান, ডাকাত দলের সর্দার মো.আরাফাতের নেতৃত্বে ৫-৬ জন সংঘবদ্ধ হয়ে ভারতীয় নাগরিকদের গাড়িটি ডাকাতির কথা পুলিশের কাছে স্বীকার করে মাসুদ। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে থানার অফিসার ইনচার্জ জাহেদুল কবিরের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে কিছু মালামাল উদ্ধার করা হয়েছে। ডাকাতির সাথে জড়িত অন্যদের গ্রেফতার ও বাকি মালামাল উদ্ধারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: