fbpx
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

মুজিবনগর দিবসকে জাতীয়ভাবে ঘোষণা করার দাবি রাবি শিক্ষার্থীদের

১৭ এপ্রিল ২০১৯, ১০:৪১:৫৯

রাবি প্রতিনিধি:
১৭ এপ্রিল ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস। দিনটিকে জাতীয়ভাবে ঘোষণা করার দাবিতে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) মেহেরপুর ছাত্র উন্নয়ন সংঘের (মেসডা) শিক্ষার্থীরা কর্মসূচি পালন করেছে। বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে বুধবার বেলা সাড়ে ১১টায় এই দাবিতে মানববন্ধন করেছে মেহেরপুর ছাত্র উন্নয়ন সংঘ।

মেসডার সভাপতি আশরাফুল আলমের সভাপতিত্বে মানবন্ধনে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী তমাল হোসেন বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশ সৃষ্টির ক্ষেত্রে মুজিবনগর সরকারের অবদান অনস্বীকার্য। মুজিবনগর সরকারের সফল নেতৃত্বেই এই দেশ স্বাধীনতা অর্জন করেছে। অথচ এই দিবসটিই জাতীয়ভাবে পালন করা হয় না! এটি জাতি হিসেবে আমাদের জন্য খুবই দুঃখজনক।

এসময় মেসডার সদস্য মো. হাসিবের স ালনায় মানববন্ধনের বক্তব্যে গিয়াস উদ্দীন, আবু জাফর, তমাল হোসেন, নাজমুল হোসেনসহ অন্যান্য বক্তারা জানান, সমগ্র বাংলাদেশ মেহেরপুর তথা মুজিবনগরের কাছে ঋণী। কারণ মুক্তিযুদ্ধে সফল নেতৃত্বের প্ল্যাটফর্ম তৈরি করে দিয়েছিলো এই মুজিবনগর। তাই দেশবাসীর উচিৎ এই দিসবটিতে সফলভাবে পালন করা।

মানববন্ধন থেকে মুজিবনগর দিবসকে জাতীয়ভাবে পালন করার ঘোষণাসহ, মেহেরপুরে উন্নতমানের চিকিৎসা সুবিধা, বিশ্ববিদ্যালয়, কলেজ প্রতিষ্ঠার দাবি জানানো হয়।

এর আগে বেলা ১১ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় লাইব্রেরির সামনে থেকে র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে মানববন্ধনে মিলিত হয়। কর্মসমূচিতে প্রায় দেড় শতাধিক শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

প্রসঙ্গত, ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ কালরাতে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী নিরস্ত্র বাঙালি জাতির ওপর হামলা চালানোর পর ১০ এপ্রিল আনুষ্ঠানিকভাবে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার প্রতিষ্ঠা করা হয়। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে রাষ্ট্রপতি, সৈয়দ নজরুল ইসলামকে উপরাষ্ট্রপতি এবং তাজউদ্দীন আহমদকে প্রধানমন্ত্রী করে মুজিবনগর সরকার গঠন করা হয়। জেনারেল আতাউল গনি ওসমানী অস্থায়ী সরকারের মুক্তিবাহিনীর প্রধান সেনাপতি নিযুক্ত হন। ওই সরকারের শপথ গ্রহণের স্থান বৈদ্যনাথতলাকে মুজিবনগর নামকরণ করা হয়। মুজিবনগর সরকারের সফল নেতৃত্বে ৯ মাসের সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশ স্বাধীন হয়।#

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: