fbpx
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

কামরুল হাসান মুরাদ

ঝালকাঠি প্রতিনিধি

রাজাপুরে জোর করে মাদক খাওয়ানো সেই স্কুল শিক্ষার্থী উন্নত চিকিৎসার জন্য শেবাচিমে ভর্তি

১০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ৯:২৬:৩৩


রাজাপুর প্রতিনিধিঃ
ঝালকাঠির রাজাপুরে কৌশলে চায়ের সাথে ও পরে জোর করে মাদক খাওয়ানো মাইনুল ইসলাম (১৩) নামের সেই স্কুল শিক্ষার্থীর শরীরের অবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হসপিটালে নিয়ে যাওয়া হয়। বর্তমানে বরিশাল শেবাচিমে চিকিৎসাধীন রয়েছে। রবিবার সকালে রাজাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ঐ স্কুল শিক্ষার্থী মাইনুলের শারিরীক উন্নতি না হওয়ায় বরিশাল শেবাচিমে রেফার করে দেন।

উল্লেখ্য গত বৃহস্পতিবার বিকেলে উপজেলার পশ্চিম বাদুরতলা এলাকার রুস্তুম হাওলাদারের ছেলে এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী রেজাউল হাওলাদার একই এলাকার এমএস আলম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেনির ছাত্র ও মৃত. আঃ হাই মল্লিকের ছেলে মাইনুল কে বাদুরতলা বাজারে বসে চায়ের সাথে মিশিয়ে কৌশলে ও পরবর্তীতে দোকান থেকে ডেকে নিয়ে বাজারের কাছে থাকা বিষখালী নদীর পাসে নিয়ে জোর করে অনেক গুলো নেশা জাতিয় ঔষধ খাওয়ায়। এর কিছুক্ষন পরেই মাইনুল অজ্ঞান হয়ে পরে।

পরবর্তীতে স্থানীয়রা মাইনুলকে এভাবে দেখতে পেয়ে উদ্ধার করে বাড়ি নিয়ে যায়। এক পর্যায়ে মাইনুল বমি করাসহ তার শরীরে অনেক অসুস্থ্যতা দেখাদিলে তাৎক্ষনিক রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসা হয়।

মাইনুলের বড় ভাই বুলবুল আহম্মেদ জানান, গত বৃহস্পতিবার রাত থেকে মাইনুল রাজাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন ছিলো কিন্তু রবিবার সকাল পর্যন্ত মাইনুলের শারিরীক উন্নতি না হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য কর্তব্যরত চিকিৎসক বরিশাল শেবাচিমে রেফার করে দেন।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: