করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ১,৬০৪ ◈ আজকে মৃত্যু : ১৯ ◈ মোট সুস্থ্য : ৩২২,৭০৩
প্রচ্ছদ / সারাবিশ্ব / বিস্তারিত

লেবাননে জননেত্রী শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মদিন উদযাপন

২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৫:৫৭:৪১

মো জুয়েল রানা লেবানন ঃ-বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ লেবানন শাখা কেন্দ্রীয় কমিটির উদ্দ্যেগে দেশরত্ন জননেত্রী শেখ হাসিনার ৭৪তম জন্মদিন উদযাপন উপলক্ষে মিলাদ মাহফিল দোয়া ও কেক কাটা এবং আলোচনা সভার আয়োজন করে।

২৮ই সেপ্টেম্বর সোমবার রাতে লেবানন বৈরুতে রামেল বায়দা হোটেলের হল রুমে এই দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভাটি অনুষ্ঠিত হয়।

আওয়ামী লীগ লেবানন শাখার নেতা এস এম জসিম ও আলমগীর হোসেনের যৌথ পরিচালনায় সভাপতিত্ব করেন সো বাবুল মিয়া।

আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ লেবানন শাখার কেন্দ্রীয় কমিটির, বাবুল মুন্সী, আশফাক তালুকদার, জাকির হোসেন রানা, সাধারন সম্পাদক মশিউর রহমান টিটু, মোহাম্মদ আলী রুহুল আমিন, জবরুল ইসলাম সুজাত মিয়া ও কাজল মিয়া সহ আরো অনেকে।

এছাড়া আরও সভায় উপস্থিত ছিলেন, আবুল কাশেম সাদী, ইস্কান্দার আলি মোল্লা, নিলু মোল্লা, কবির আহমেদ, আশরাফুল আলম সহ সকল শাখা কমিটির নেতৃবৃন্দ।

সভায় বক্তারা বলেন, জাতীয় জীবনের বহুক্ষেত্রে অভাবনীয় সাফল্য অর্জন করেছেন শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর গতিশীল নেতৃত্বে করোনাকালেও দেশের প্রবৃদ্ধি এশিয়ায় প্রায় সবদেশের ওপরে রয়েছে। বর্তমানে শেখ হাসিনার হাত ধরে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। পাশাপাশি বহিবিশ্বে বাংলাদেশের সুনাম বৃদ্ধি পাচ্ছে। ভবিষ্যতে এই ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে আরও শক্তিশালী করতে হবে। তাই পূর্বের দ্বিধাদ্বন্দ্ব ভুলে গিয়ে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে।

উল্লেখ্য মধুমতি নদী বিধৌত গোপালগঞ্জ জেলার টুঙ্গীপাড়া গ্রামে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বেগম ফজিলাতুন্নেসা মুজিবের ঘরে ১৯৪৭ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর জন্মগ্রহণ করেন বঙ্গবন্ধুকন্যা বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বাবা-মায়ের প্রথম সন্তান। শৈশব কৈশোর কেটেছে বাইগার নদীর তীরে টুঙ্গীপাড়ায় বাঙালির চিরায়ত গ্রামীণ পরিবেশে, দাদা-দাদির কোলে-পিঠে। পিতা শেখ মুজিবুর রহমান তখন জেলে বন্দি, রাজরোষ আর জেল-জুলুম ছিল তাঁর নিত্য সহচর। রাজনৈতিক আন্দোলন এবং রাজনীতি নিয়েই শেখ মুজিবুর রহমানের দিন-রাত্রি, যাপিত জীবন। বাঙালির মুক্তি আন্দোলনে ব্যস্ত পিতার দেখা পেতেন কদাচিৎ। শেখ হাসিনা গ্রামবাংলার ধূলোমাটি আর সাধারণ মানুষের সাথেই বেড়ে উঠেছেন। গ্রামের সাথে তাই তাঁর নিবিড় সম্পর্ক।

অনুষ্ঠানে জননেত্রী শেখ হাসিনা সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা বিশেষ মোনাজাত করা হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা মতিউর রহমান। পরে কেক কাটার মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি করা হয়।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: