করোনা লাইভ
আজকে আক্রান্ত : ২,৪২৩ ◈ আজকে মৃত্যু : ৩৫ ◈ মোট সুস্থ্য : ১২,১৬১
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতের বর্জ্য পরিষ্কার করলো জেলা পুলিশ

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৭:২৯:২৭

পারভেজ কলাপাড়া(পটুুয়াখালী) প্রতিনিধি ঃসূর্যোদয় সূর্যাস্তের বেলাভূমি সাগর কন্যা কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতের ৮ কিলোমিটারের প্লাস্টিকের বোতল, বিভিন্ন পলিথিন ও প্লাস্টিক বর্জ্য পরিষ্কার করেছে জেলা পুলিশের খেলোয়াড় দলের সদস্যরা।শনিবার বেলা ১১ টায় কুয়াকাটার পূর্ব‌ দি‌কে গঙ্গাম‌তি চর এলাকায় পটুয়াখালীর পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মইনুল হাসান পিপিএম এ কর্মসূচীর উদ্বোধন করেন।এ সময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো:মাহফুজুর রহমানের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (হেডকোয়ার্টার) শেখ বিল্লাল হোসেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কলাপাড়া সার্কেল) আহমেদ আলী, সহকারী পুলিশ সুপার মো:ফেরদৌসী প্রমুখ।এছাড়া সৈকতের ময়লা ফেলার জন্য জেলা পুলিশের উদ্যোগে সৈকতের বিভিন্ন স্থানে শতাধিক ডাস্টবিন স্থাপন করা হয়েছে। এতে সৈকতের সৌন্দর্য আরো বৃ‌দ্ধি পাবে বলে মনে করেন সং‌শ্লিষ্টরা।পটুয়াখালীর পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মইনুল হাসান পিপিএম জানান, বাংলাদেশের একমাত্র সমুদ্র সৈকত হচ্ছে সাগরকন্যা কুয়াকাটা যেখান থেকে সূর্যোদয় ও সূর্যাস্ত উপভোগ করা যায়। সূর্যোদয় উপভোগের এ মনোরম স্থানে দায়িত্ব পালনরত অবস্থায় আমরা যত্রতত্র ময়লা আবর্জনা প্রত্যক্ষ করেছি যা দেশী ও বিদেশী পর্যটকদের সমুদ্র সৈকত সম্পর্কে নেতিবাচক ধারণা পোষণ করে। বিদেশি পর্যটকরা আমাদের পর্যটন শিল্পের উন্নয়ন ও বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন।তিনি আরও জানান, বাংলাদেশ পুলিশের দায়িত্ব ও কর্তব্য হচ্ছে আইন শৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণ তথা অপরাধ দমন,প্রতিরোধ এবং অপরাধীকে আইনের আওতায় এনে বিজ্ঞ আদালতে সোপর্দ করা। তদুপরি, সামাজিক দায়বদ্ধতার জায়গা থেকে জেলা পুলিশ সমুদ্র সৈকত এলাকায় পর্যটকদের নিরাপত্তা বিধানের পাশাপাশি ওই স্থানটি পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করার বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছে। জেলা পুলিশের খেলোয়াড় দলের সদস্যবৃন্দ ব্যাপক সাড়া দিয়েছেন। আমরা ময়লা রাখার জন্য পর্যাপ্ত সংখ্যক ডাস্টবিন বক্স স্থাপন করেছি যাতে সর্বসাধারণের ব্যবহৃত ময়লা নির্দিষ্ট জায়গায় রাখতে পারেন।এসময় জন সাধারণ সহ পর্যটকদেরকে আহ্বান জানিয়ে তিনি আরও বলেন, সৈকত পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখুন, পরিবেশ দূষণ থেকে বিরত থাকুন, এবং সকলেই এ ব্যাপারে সচেতন হবো।

দৈনিক আলোর প্রতিদিন এর প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

পাঠকের মতামত: